ঢাকারবিবার , ২৩ অক্টোবর ২০২২
  • অন্যান্য

বান্দরবানের আরও ২ উপজেলায় পর্যটক নিষিদ্ধ

অক্টোবর ২৩, ২০২২ ৮:৩৩ অপরাহ্ণ । ১২৮ জন

গ্রীনসিটি ডেস্ক:

বান্দরবানের সীমান্ত এলাকায় নিরাপত্তা বাহিনীর যৌথ অভিযানের কারণে রুমা ও রোয়াংছড়ির পর এবার থানচি ও আলীকদম উপজেলায় পর্যটক যাতায়াত নিষিদ্ধ করেছে জেলা প্রশাসন।

১৭ অক্টোবর রাতে রুমা ও রোয়াংছড়ি উপজেলায় পর্যটক যাতায়াত নিষিদ্ধ করা হয়। আর রোববার (২৩ অক্টোবর) রাতে প্রশাসন এক নিদের্শনায় থানচি ও আলীকদম উপজেলায় পর্যটক যাতায়াত নিষিদ্ধ করে।

জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. লৎফুর রহমান স্বাক্ষরিত পত্রে বলা হয়, জেলার থানচি ও আলীকদম উপজেলায় শসস্ত্র বিচ্ছিন্নবাদী সংগঠনের উপস্থিতির বিষয়ে সুনির্দিষ্ট তথ্য সংগ্রহের জন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর টহল কার্যক্রম পরিচালনা ও গোয়েন্দা কার্যক্রম অব্যাহত রাখা হবে। এ সময় পর্যটকদের নিরাপত্তার বিষয় বিবেচনা করে আলীকদম ও থানচি উপজেলার ২৩ অক্টোবর থেকে আগামী ৩০ অক্টোবর পর্যন্ত নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার (২০ অক্টোবর) বান্দরবানের রোয়াংছড়ি ও রাঙামাটি বিলাইছড়ির সাইজামপাড়ার দূর্গম এলাকায় যৌথ বাহিনীর ১০ দিনের অভিযানে জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়ার ৭ জন ও বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন কুকি চিন ন্যাশনাল ফ্রন্টের (কে এনএফ) ৩ জনসহ মোট ১০ সদস্য কে বিপুল পরিমাণ অস্ত্র, গোলাবারুদ ও সরঞ্জামসহ গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। এ সময় তাদের আস্তানা ধ্বংস করা হয়। আর এ ঘটনার পর স্থানীয়দের মধ্যেও আতংক ছড়িয়ে পড়ে।

উপজেলায় পর্যটক যাতায়াত নিষিদ্ধ করা ও যৌথ বাহিনীর অস্ত্র উদ্ধারসহ শসস্ত্র সন্ত্রাসীদের গ্রেফতারের কারণে জেলা জুড়ে আতংক বিরাজ করছে। ফলে জেলায় পর্যটক আগমন বন্ধ হয়ে যাওয়ায় দুই শতাধিক হোটেল-মোটেল এখন পর্যটক শূন্য। পর্যটন শিল্পের সঙ্গে জড়িত ব্যবসায়ীরা পড়েছে বিপাকে।

রািইজিংবিডি