ঢাকাবুধবার , ১৬ নভেম্বর ২০২২
  • অন্যান্য

সানির বিরুদ্ধে প্রতারণার মামলায় হাইকোর্টের স্থগিতাদেশ

নভেম্বর ১৬, ২০২২ ৪:৪৯ অপরাহ্ণ । ১০৫ জন

বলিউডের আলোচিত-সমালোচিত অভিনেত্রী সানি লিওনের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ এনে মামলা করা হয়েছে। মামলার কারণ হিসেবে বলা হয়েছে, সানি একটি অনুষ্ঠানে নাচের কথা দিয়েছিলেন। সেজন্য মোটা অংকের পারিশ্রমিকও নিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু অনুষ্ঠানের সময় উপস্থিত হননি সানি।

সানির বিরুদ্ধে এই অভিযোগে করে একাধিক ধারায় মামলা হয়েছে। আদালতে সানি জানান, ওই মামলার ফলে তার ভাবমূর্তির ক্ষতি হচ্ছে। সানি লিওনের বিরুদ্ধে ভারতের কেরালা হাইকোর্টে দায়ের হওয়া প্রতারণা মামলায় স্থগিতাদেশ দিয়েছে কেরালা হাইকোর্ট।

সানির বিরুদ্ধে দায়ের হওয়া প্রতারণা মামলা খারিজের জন্য হাইকোর্টে আবেদন করেছিলেন তিনি। আজ (১৬ নভেম্বর) সানি ও তার স্বামী ড্যানিয়েল ওয়েবার এবং অফিসের এক কর্মীর বিরুদ্ধে একটি প্রতারণা মামলায় স্থগিতাদেশ দেন হাইকোর্টের বিচারপতি জিয়াদ রহমান।

আদালত জানায়, পরবর্তী শুনানি পর্যন্ত সানির বিরুদ্ধে কোনো রকম কঠিন পদক্ষেপ গ্রহণ করা যাবে না।

সানির বিরুদ্ধে দায়ের করা অভিযোগের এই ঘটনার শুরু বেশ কয়েক মাস আগে। কেরালার একটি অনুষ্ঠানের ব্যবস্থাপক (ইভেন্ট ম্যানেজার) সানি ও তার স্বামী এবং অফিসের এক কর্মীর বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ আনেন। তার অভিযোগ, একটি অনুষ্ঠানে নাচের কথা দিয়েছিলেন অভিনেত্রী। সেজন্য মোটা অংকের পারিশ্রমিকও নিয়েছেন। কিন্তু অনুষ্ঠানের সময় বার বার তার সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও পাওয়া যায়নি। এতে অনুষ্ঠানের দায়িত্বে থাকা ব্যক্তিদের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হয়েছে। সানির বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৪০৬, ৪২০ এবং ৩৪ ধারায় মামলা হয় থানায়। আদালতে গড়ায় ওই মামলা।

অন্যদিকে, মামলা খারিজের আবেদন নিয়ে হাইকোর্টে যান সানি। তার দাবি, তিনি নির্দোষ। কোনো ভুল বোঝাবুঝির কারণে এটা হয়ে থাকতে পারে। কিন্তু এই মামলার ফলে তার ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হচ্ছে।

আদালতের কাছে সানির আবেদন, সংশ্লিষ্ট মামলার অভিযোগকারীদের কোনো ক্ষতি হয়নি। কিন্তু এই মামলার ফলে তিনি কঠিন পরিস্থিতির মুখোমুখি হচ্ছেন। সানির ব্যাখ্যা, গত জুলাই মাসে এ ঘটনায় দেওয়ানি মামলা হয়েছিল। কিন্তু ম্যাজিস্ট্রেট আদালত এই মামলা খারিজ করে দেন। আদালত জানান, অভিযোগের উপযুক্ত প্রমাণের অভাব রয়েছে। তাই ওই মামলা থেকে তাকে অব্যাহতি দেওয়া হোক।

জাগোনিউজ