ঢাকাবুধবার , ২৮ ডিসেম্বর ২০২২
  • অন্যান্য

রংপুরবাসীর জন্য জয় উৎসর্গ করলেন মোস্তফা

ডিসেম্বর ২৮, ২০২২ ৪:২৮ অপরাহ্ণ । ৭১ জন

রংপুর সিটি করপোরেশনে দ্বিতীয়বারের মতো মেয়র নির্বাচিত হওয়া জাতীয় পার্টির প্রার্থী মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা তার জয়কে রংপুরবাসীর জন্য উৎসর্গ করে বলেছেন, ‘এ বিজয় জাতীয় পার্টির বিজয়। আমি রংপুরবাসীকে আমার পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা ও কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।’

বুধবার (২৮ ডিসেম্বর) সকালে নগরীর খামারমোড়স্থ বাসভবনে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এ কথা বলেন।

মোস্তফা বলেন, ‘আমি মনে করি আমার এ বিজয়ে জাতীয় পার্টি অনুপ্রারণীত হবে। জাতীয় পার্টির কর্মীদের অনুপ্রেরণা যোগাবে। জাতীয় পার্টি এগিয়ে যাবে এই প্রত্যয় আমি রাখছি। আমি মনে করি, এ জয় ছিলো অনেক কষ্টার্জিত বিজয়।’

গতকাল মঙ্গলবার রংপুর সিটি করপোরেশনের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। সকাল সাড়ে ৮টা থেকে বিকেল সাড়ে ৪টা পর্যন্ত ইভিএমে ভোটগ্রহণ করা হয়। পরে জেলা শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে রাত ১২টায় রিটার্নিং কর্মকর্তা আবদুল বাতেন নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা করেন।

ঘোষিত ফলাফলে জানা যায়, লাঙ্গল প্রতীকে মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা পেয়েছেন ১ লাখ ৪৬ হাজার ৭৯৮ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমিরুজ্জামান পিয়াল। তিনি  হাত পাখা প্রতীকে পেয়েছেন ৪৯ হাজার ৮৯২ ভোট।

তৃতীয় অবস্থানে স্বতন্ত্র প্রার্থী লতিফুর রহমান মিলন হাতি প্রতীকে পেয়েছেন ৩৩ হাজার ৮৮৩ ভোট। ভোট ব্যবধানে চতুর্থ অবস্থানে থাকা আওয়ামী লীগের প্রার্থী অ্যাডভোকেট হোসনে আরা লুৎফা ডালিয়া নৌকা প্রতীকে পেয়েছেন ২২ হাজার ৩০৬ ভোট।

এছাড়া বাংলাদেশ কংগ্রেস পার্টির প্রার্থী আবু রায়হান ডাব প্রতীকে ১০ হাজার ৫৪৯ ভোট, জাকের পার্টির খোরশেদ আলম খোকন গোলাপ ফুল প্রতীকে ৫ হাজার ৮০৯, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জাসদ-ইনু) শফিয়ার রহমান মশাল প্রতীকে পেয়েছেন ৫ হাজার ১৫৬ ভোট। খেলাফত মজলিশের তৌহিদুর রহমান মন্ডল রাজু দেওয়াল ঘড়ি প্রতীকে ২ হাজার ৮৬৪ এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী মেহেদী হাসান বনি হরিণ প্রতীকে ২ হাজার ৬৭৯ ভোট পেয়েছেন।

প্রসঙ্গত, ২০১২ সালের ২৮ জুন পৌরসভা থেকে ১৮টি ওয়ার্ড বর্ধিত করে ৩৩টি ওয়ার্ড নিয়ে রংপুর সিটি করপোরেশন গঠিত হয়। এরপর প্রথম নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয় একই বছরের ২০ ডিসেম্বর। এতে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সরফুদ্দিন আহমেদ ঝন্টু প্রথম মেয়র নির্বাচিত হন। ২০১৭ সালের ২১ ডিসেম্বর দ্বিতীয় নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সরফুদ্দিন আহমেদ ঝন্টুকে পরাজিত করে মেয়র হন জাতীয় পার্টির প্রার্থী মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা।

রাইজিংবিডি