ঢাকাবৃহস্পতিবার , ২৯ ডিসেম্বর ২০২২

রাজশাহী নগরীতে কৃমি নিয়ন্ত্রণ সপ্তাহ উপলক্ষে এ্যাডভোকেসি সভা

ডিসেম্বর ২৯, ২০২২ ৪:২৩ অপরাহ্ণ । ১০৫ জন

নিজস্ব প্রতিবেদক:
রাজশাহীতে মহানগরীতে আগামী ৭-১২ জানুয়ারী ২০২৩ জাতীয় কৃমি নিয়ন্ত্রণ সপ্তাহ পালন করবে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন। জাতীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে রাজশাহী মহানগরীর বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ৫-১৬ বছরের সকল শিশুকে বিনামূল্যে একটি করে কৃমিনাশক ঔষুধ খাওয়ানো হবে।
এ লক্ষ্যে সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে নগরভবন সরিৎ দত্ত গুপ্ত সভাকক্ষে এ উপলক্ষে কেন্দ্রীয় এ্যাডভোকেসি সভা অনুষ্ঠিত হয়।
রাজশাহীতে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ৫-১৬ বছরের ১লাখ ৪ হাজার ৮২৬ জন শিশুকে কৃমিনাশক ট্যাবলেট খাওয়ানোর লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে এ কার্যক্রম বাস্তবায়ন করবে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন।
সভায় বক্তারা জানান, ভবিষ্যত প্রজন্মকে স্স্থ্যু ও সবলভাবে গড়ে তুলতে তাঁদের কৃমিমুক্ত রাখতে হবে। এ লক্ষ্যে জাতীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে ৭-১২ জানুয়ারি ২০২৩ রাজশাহী মহানগরীতে কৃমি নিয়ন্ত্রণ সপ্তাহ কার্যক্রম পালন করবে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন। স্কুলের প্রতিটি শিশুকে প্রতি ৬ মাসে ১টি ট্যাবলেট দিতে হবে। কোন শিশু যেন কৃমিনাশক ট্যাবলেট খাওয়া থেকে বাদ না পড়ে সেজন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে দায়িত্বশীল ভূমিকা রাখতে হবে। এ কার্যক্রম সফলভাবে বাস্তবায়নে সকলকে একযোগে কাজ করতে হবে। শিশুদের রোগমুক্ত, সুস্থ্য সবলভাবে গড়ে তুলতে তাঁদের স্বাস্থ্য সচেতনতার বিষয়ে জোর দিতে হবে। এ সকল কার্যক্রম সঠিকভাবে বাস্তবায়নের ফলে মা ও শিশু মৃত্যু হার কমিয়ে আনা সম্ভব হয়েছে। ফলে স্বাস্থ্যসেবায় সরকারের লক্ষ্যমাত্রা পূরণ হচ্ছে।
রাসিকের শিক্ষা, স্বাস্থ্য, পরিবার, পরিকল্পনা স্বাস্থ্য রক্ষাব্যবস্থা স্থায়ী কমিটির সভাপতি ৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ নূরুজ্জামান টুকুর সভাপতিত্বে আয়োজিত সভায় সম্মানিত অতিথির বক্তব্য দেন প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক শেখ মোঃ রায়হান উদ্দিন, রাসিকের সচিব মশিউর রহমান, পরিচালক স্বাস্থ্য কার্যালয়ের উপ-পরিচালক ডাঃ মোঃ আনোয়ারুল কবীর, জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ সাইদুল ইসলাম।
সভায় স্বাগত বক্তব্য ও এ কার্যক্রম সম্পর্কে বিস্তারিত প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন রাসিকের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা: এফ.এ.এম আঞ্জুমান আরা বেগম। সভায় রাসিকের বাজেট কাম হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম খান, প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা আবু সালেহ মোঃ নুর-ই-সাঈদদ, মেডিকেল অফিসার ডাঃ আমিনা ফেরদৌস, ভ্যাটেরিনারী সার্জন ডাঃ ফরহাদ উদ্দিন, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা রাজশাহীর প্রোগ্রামার মামুন সারোয়ার, থানা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার (মতিহার) মিজানুর রহমান, থানা শিক্ষা অফিসার (বোয়ালিয়া) জাহিদ হাসান, থানা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার শামীম আহমেদ খান, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
উল্লেখ্য, কৃমি নিয়ন্ত্রণ সপ্তাহে প্রাথমিক ও মাধ্যমিক পর্যায়ের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি মাদ্রাসা, মক্তব ও এতিমখানাসহ সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে এ কার্যক্রমের আওতায় নিয়ে আনার লক্ষ্য নিয়ে ৫-১৬ বছর বয়সী বিদ্যালয়গামী ও একই বয়সী বিদ্যালয় বহির্ভূত, ঝরে পড়া, পথ শিশু, কর্মজীবি শিশুসহ সকল শিশুকে এ কার্যক্রমের আওতায় আনা হবে।

Paris