ঢাকাশনিবার , ২৫ মার্চ ২০২৩
  • অন্যান্য

রাজশাহী কলেজের উদ্যোগে গণহত্যা দিবস পালিত

মার্চ ২৫, ২০২৩ ৭:২৬ অপরাহ্ণ । ৮৫ জন

নিজস্ব প্রতিবেদক :
২৫শে মার্চ গণহত্যা দিবস-২০২৩ উপলক্ষ্যে রাজশাহী কলেজ বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করে। কর্মসূচির অংশ হিসেবে সকাল সাড়ে ১০ শেখ রাসেল দেয়ালিকায় ২৫শে মার্চ ‘গণহত্যা দিবস’ উপলক্ষ্যে বিশেষ দেয়ালিকার উদ্বোধন করা হয়। সকাল ১০ কলেজ অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত হয় বীর মুক্তিযোদ্ধা সম্মাননা, স্মৃতিচারণ ও আলোচনা সভা।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মোহাঃ আব্দুল খালেক। অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নৌ কমান্ডো বীর মুক্তিযোদ্ধা আজিজুল আলম, বীর মুক্তিযোদ্ধা কর্পোরাল মোঃ আশরাফ আলী, উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মোহাঃ ওলিউর রহমান, শিক্ষক পরিষদের সম্পাদক প্রফেসর আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক কমিটির আহ্বায়ক প্রফেসর ড. মোসাঃ ইয়াসমীন আকতার সারমিন। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন বিভিন্ন বিভাগের বিভাগীয় প্রধানগণ, শিক্ষকমন্ডলী ও শিক্ষার্থীবৃন্দ।

সভায় বীর মুক্তিযোদ্ধাগণ ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধের বীরত্বগাঁথা, দেশের জন্য আত্মত্যাগ ও আবেগের কথা তুলে ধরেন। নৌ কমান্ডো বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ আজিজুল আলম তাঁর স্মৃতিচারণায় মুক্তিযুদ্ধে নৌ কামান্ডোদের বিভিন্ন দুঃসাহসিক অভিযানের বর্ণনা তুলে ধরেন। তিনি আরও বলেন বঙ্গবন্ধু এদেশের মানুষকে দেশপ্রেমে উজ্জীবিত করতে পেরেছিলেন বলেই বীর মুক্তিযোদ্ধারা প্রশিক্ষিত ও আধুনিক অস্ত্রে সজ্জিত পাক-হানাদার বাহিনীর বিরুদ্ধে প্রথমে প্রতিরোধ ও পরে বীরবিক্রমে যুদ্ধ করে তাদের পরাজিত করতে সক্ষম হয়। বীর মুক্তিযোদ্ধা কর্পোরাল মোঃ আশরাফ আলী বলেন- আমরা কোন লোভ-লালসা নিয়ে দেশের জন্য যুদ্ধ করিনি, আমরা যুদ্ধ করেছি দেশকে স্বাধীন করার জন্য। উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মোহাঃ ওলিউর রহমান বঙ্গবন্ধুর সুখী সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গঠনে মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস নতুন প্রজন্মের নিকট যথাযথভাবে তুলে ধরার আহ্বান জানান।

সভাপতির বক্তব্যে অধ্যক্ষ প্রফেসর আব্দুল খালেক বলেন, শিক্ষার্থীরা যেন মুক্তিযুদ্ধ স¤পর্কে সঠিক ইতিহাস জানতে পারে, এ জন্য মুক্তিযোদ্ধাদের নিয়ে আজকের এ আয়োজন। বীর মুক্তিযোদ্ধাদের স্মৃতিচারণ আমাদের জ্ঞানকে আরও সমৃদ্ধ করবে। আলোচনা অনুষ্ঠানে উপস্থিত থেকে স্মৃতিচারণ করার জন্য তিনি নৌ কমান্ডো বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ আজিজুল আলম ও বীর মুক্তিযোদ্ধা কর্পোরাল মোঃ আশরাফ আলীর প্রতি গভীর কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন। পরিশেষে রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানের সাথে সামঞ্জস্য রেখে রাত ১০:৩০ মিনিটে এক মিনিট ব্ল্যাক আউটের মাধ্যমে দিবসের কর্মসূচির সমাপ্ত হয়।

Paris