ঢাকাবৃহস্পতিবার , ৬ এপ্রিল ২০২৩

পুলিশের নিয়ন্ত্রণে বঙ্গবাজার, পোড়াস্তূপ থেকে এখনো উঠছে ধোঁয়া

এপ্রিল ৬, ২০২৩ ১১:৫০ পূর্বাহ্ণ । ১২২ জন

রাজধানীর বঙ্গবাজারের আগুনে পুড়ে যাওয়া এলাকা নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে পুলিশ। যথাযথ কারণ ছাড়া কাউকেই ভেতরে ঢুকতে দিচ্ছে না তারা।

 

দায়িত্বরত পুলিশ সদস্যদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, উৎসুক জনতা যাতে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করতে না পারে এবং ব্যবসায়ীদের মালামাল যাতে চুরি না হয় এজন্য আগুনে পুড়ে যাওয়া এলাকায় কাউকে প্রবেশ করতে দেওয়া হচ্ছে না। শুধুমাত্র এনেক্সকো টাওয়ারে ব্যবসায়ীদের তাদের মালামাল সরাতে প্রবেশ করতে দেওয়া হচ্ছে৷ তবে সেটিও দোকান মালিক সমিতি বলার পর।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ধানমন্ডি মডেল থানার পরিদর্শক (অপারেশন) মো. রাসেল বলেন, বুধবার (৫ এপ্রিল) সন্ধ্যার পর থেকে এলাকাটি পুলিশ নিয়ন্ত্রণে নেয়। গত দুই দিন অনেক ভাসমান ও ছিন্নমূল মানুষ এখানে ঢুকে জিনিসপত্র চুরি করে নিয়ে গেছে। তাই ব্যবসায়ীদের মালামাল রক্ষা করতে সর্বসাধারণের প্রবেশ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। মালিক সমিতির সঙ্গে কথা বলেই এটি করা হয়েছে। এজন্য রাস্তার দুই পাশে ব্যারিকেড দেওয়া হয়েছে।

কতদিন পর্যন্ত এলকাটি পুলিশের নিয়ন্ত্রণে থাকবে জানতে চাইলে তিনি বলেন, এই ব্যপারে এখনো সিদ্ধান্ত হয়নি। আগুন পুরোপুরি নিভলে, মালিক সমিতির সঙ্গে কথা বলে তাদের কাছে ভবনগুলো হস্তান্তর করা হবে। এরপর হয়তো রাস্তাটি খুলে দেওয়া হবে।

এদিকে বঙ্গবাজার মার্কেটে এখন আর কোনো দৃশ্যমান আগুন নেই। তবে পোড়াস্তূপ থেকে এখনো ধোঁয়া উঠছে। বর্তমানে ফায়ার সার্ভিসের সদস্যদের ডাম্পিং ডাউনের (আগুন পুরোপুরি নেভানো) কাজ করতে দেখা যায়।

সকাল ১০টার দিকে দেখা যায়, বঙ্গবাজার মার্কেটের পোড়াস্তূপ থেকে সাদা ধোঁয়া উঠছে। ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা বঙ্গবাজারে পোড়াস্তূপের মধ্যে কোথাও আগুন আছে কিনা সেটি খুঁজে পানি ছিটাচ্ছেন। এছাড়া এনেক্সকো টাওয়ারের মধ্যেও তাদের পানি ছিটাতে দেখা যায়।

অন্যদিকে তিনদিন বন্ধ থাকার পর অবশেষে সরকারি কর্মচারী হাসপাতালের সামনে থেকে পুলিশ সদর দপ্তরের সমানের রাস্তাটির একপাশ খুলে দেওয়া হয়েছে। ফলে ওই রাস্তায় সকাল থেকে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে।

এর আগে মঙ্গলবার (৪ এপ্রিল) সকাল ৬টা ১০ মিনিটে বঙ্গবাজারে আগুন লাগার খবর পায় ফায়ার সার্ভিস। সকাল ৮টার দিকে ফায়ার সার্ভিসের ৪১টি ইউনিট ঘটনাস্থলে যায়। এরপর ৪৩টি ইউনিট যাওয়ার খবর জানায় ফায়ার সার্ভিস। পরে ৪৮টি ইউনিটের প্রায় সাড়ে ছয় ঘণ্টা চেষ্টায় বেলা ১২টা ৩৬ মিনিটে আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। এরপর প্রায় ২৬ ঘণ্টা পেরিয়ে গেলেও এখনো আগুন পুরোপুরি নেভার আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেয়নি ফায়ার সার্ভিস।

আগুনে বঙ্গবাজার এলাকার মোট সাতটি মার্কেট পুড়ে গেছে। এর মধ্যে চারটি পুরোপুরি ও তিনটি আংশিক। মার্কেটগুলো হলো- বঙ্গ ইসলামীয়া মার্কেট, বঙ্গ হোমিও কমপ্লেক্স, বঙ্গবাজার মার্কেট, এনেক্সকো টাওয়ার, মহানগর শপিং কম্প্লেক্স, আদর্শ মার্কেট, গুলিস্তান মার্কেট।

Paris