ঢাকাবৃহস্পতিবার , ২৩ মে ২০২৪

লঙ্কা প্রিমিয়ার লিগ: ফিক্সিং সন্দেহে মালিক গ্রেপ্তার, দলের চুক্তি বাতিল

মে ২৩, ২০২৪ ৯:৪২ অপরাহ্ণ । ৪৫ জন

শ্রীলঙ্কার ঘরোয়া ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগ লঙ্কা প্রিমিয়ার লিগের (এলপিএল) আসন্ন আসরে ডাম্বুলা থান্ডার্সের হয়ে খেলার কথা ছিল বাংলাদেশি পেসার মোস্তাফিজুর রহমানের। কিন্তু সেটা আর হচ্ছে না। ফিক্সিং সন্দেহে গ্রেপ্তার হয়েছেন দলটির মালিক তামিম রহমান। এর জের ধরেই ডাম্বুলা থান্ডার্সের সঙ্গে চুক্তি বাতিল করেছে লঙ্কা প্রিমিয়ার লিগ (এলপিএল)।

ক্রিকেট বিষয়ক ওয়েবসাইট ইএসপিএন ক্রিকইনফো জানিয়েছে, দুর্নীতির সন্দেহে তামিমকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তিনি বাংলাদেশি বংশোদ্ভুত ব্রিটিশ নাগরিক। দুবাইয়ের উদ্দেশে রওয়ানা হওয়ার আগে কলম্বোর বিমানবন্দর থেকে তাকে আটক করা হয়। পুলিশের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা এএফপি জানিয়েছে, তাকে ম্যাচ ফিক্সিংয়ে জড়িত বলে সন্দেহ করা হচ্ছে।

ডাম্বুলা থান্ডার্সের সঙ্গে চুক্তি বাতিল করার কথা উল্লেখ করে এলপিএলের স্বত্বাধিকারী আইপিজি গ্রুপ এক বিবৃতিতে বলেছে, ‘চুক্তি বাতিলের লক্ষ্য হচ্ছে এলপিএলের ভাবমূর্তি ও সুনাম অক্ষুণ্ন রাখা। সর্বোচ্চ মানের ক্রীড়াসুলভ আচরণ যাতে অংশগ্রহণকারী সবাই মেনে চলে।’

গ্রেপ্তারের পর তামিমকে ৩১ মে পর্যন্ত রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে। ম্যাচ গড়াপেটা ও জুয়ার আয়োজন সংশ্লিষ্ট ক্রীড়া আইনের দুটি ধারায় তার বিরুদ্ধে তদন্ত করা হচ্ছে। শ্রীলঙ্কার আইন অনুযায়ী, অভিযোগ প্রমাণ হলে বড় অঙ্কের জরিমানার সঙ্গে ১০ বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড হতে পারে।

এর আগে এলপিএলের নিলামে ডাম্বুলা দলে নিয়েছে ২৪ জন খেলোয়াড়কে। এতে ৪ লাখ ৫০ হাজার মার্কিন ডলার খরচ করেছে তারা। সর্বোচ্চ ৮০ হাজার ডলারে কেনা হয়েছে আফগান অলরাউন্ডার করিম জানাতকে। মোস্তাফিজকে সরাসরি চুক্তিতে দলে নিয়েছিল ডাম্বুলা।

ডাম্বুলা থান্ডার্স ফ্র্যাঞ্চাইজিটির সঙ্গে চুক্তি বাতিল করার পর এলপিএল এখন চার দলকে নিয়েই হবে নাকি নতুন কোনো দল নেওয়া হবে, সেটি এখনো নিশ্চিত নয়। আগামী ১ জুলাই ৫ দল নিয়ে শুরু হওয়ার কথা এলপিএলের এবারের আসর।