ঢাকাশনিবার , ১৫ জুলাই ২০২৩
  • অন্যান্য

দ. আফ্রিকাকে হারিয়ে সিরিজে সমতা আনলো যুবারা

জুলাই ১৫, ২০২৩ ৬:৩৮ অপরাহ্ণ । ১১১ জন

পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের চতুর্থ ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকা অনুর্ধ্ব-১৯ জাতীয় ক্রিকেট দলের বিরুদ্ধে ৪ উইকেটে জয়লাভ করেছে বাংলাদেশ অনুর্ধ্ব-১৯ ক্রিকেট দল। এর ফলে সিরিজে ২-২ ম্যাচে সমতা আনলো বাংলাদেশের যুবারা।

শুক্রবার (১৪ জুলাই) রাজশাহীর শহীদ এএইচএম কামারুজ্জামান রাজশাহী বিভাগীয় স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেন স্বাগতিক দলের অধিনায়ক মাহফুজুর রহমান রাব্বি। অধিনায়কের সিদ্ধান্ত সঠিক হিসেবে প্রমাণ করেন বাংলাদেশ অনুর্ধ্ব-১৯ দলের উদ্বোধনী পেস বোলার রিজান হোসেইন।

৩০ রান তুলতেই রিজান তিন টপ অর্ডার ব্যাটারকে সাজঘরে পাঠালে কিছুটা চাপে পড়ে দ. আফ্রিকা। এর পর বাকি কাজটি করেন বাংলাদেশ দলের স্পিনার রাফিউজ্জামান রাফি, তিনি মাত্র ১৮ রানের বিনিময়ে পাঁচটি উইকেট তুলে নিলে প্রোটিয়াদের ইনিংস ৩৫.২ ওভারে শেষ হয় মাত্র ১২৮ রানে।

সফরকারীদের পক্ষে সর্বোচ্চ ৪৩ রান আসে উদ্বোধনী ব্যাটার গিলবাটের ব্যাট থেকে। এছাড়া সালেট সোয়ানার করেন ১৮ রান। বাংলাদেশ দলের পক্ষে রিজান ৬ ওভারে ২৪ রানে ৩টি ও ওয়াইজ সিদ্দিকী ২৩ রানের বিনিময়ে ২টি উইকেট লাভ করেন।

১২৯ রানের সহজ জয়ের লক্ষে ব্যাট করতে এসে ২৯ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে জয়ের লক্ষে পৌঁছে যায় বাংলাদেশ অনুর্ধ্ব ১৯ দল। দলীয় ৭৭ রানে টপ ও মিডিল অর্ডারের ব্যাটারদের হারিয়ে চাপে পড়ে যায় টাইগার যুবারা। এরপর ৭ ও ৮ নম্বরে ব্যাট করতে আসা উইকেট রক্ষক আশরাফুল জাহান ও দলের অধিনায়ক মাহফুজুর রহমান রাব্বি অবিছিন্ন থেকে দলের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়েন। এছাড়া দলের পক্ষে ২৫ রান করেন আদিল বিন সিদ্দিক ও রিজান ২২ রান। দ. আফ্রিকার বোলারদের মধ্যে লিয়াম এলডার  ১০ ওভারে ৪৫ রানের বিনিময়ে ৩ উইকেট লাভ করেন।

খেলায় ম্যান অফ দ্যা ম্যাচ নির্বাচিত হন বাংলাদেশ অনুর্ধ্ব-১৯ দলের স্পিনার রাফিউজ্জামান রাফি। আগামী ১৭ জুলাই সোমবার এই ভেন্যুতে সিরিজের শেষ সিরিজ ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে।